WALTON ল্যাপটপের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন

WALTON ল্যাপটপের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন

0

বাংলাদেশের স্থানীয় প্রতিষ্ঠান ওয়াল্টন গাজীপুরে নিজস্ব ফ্যাক্টরিতে নিজস্ব ব্র্যান্ডের ল্যাপটপ তৈরি শুরু করতে যাচ্ছে! আর আজ বৃহস্পতিবার ‌রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে ‘ওয়ালটন ল্যাপটপ’ বাজারজাতকরণ উদ্বোধন করা হচ্ছে। অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত প্রধান অতিথি  হিসেবে ওয়ালটন ল্যাপটপ বাজারজাতকরণের উদ্বোধন করবেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক, ওয়ালটন গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এসএম শামসুল আলম, বেসিস সভাপতি এবং বাংলাদেশের আইসিটি খাতের পুরোধা ব্যক্তিত্ব মোস্তফা জাব্বার, ইনটেল কর্পোরেশন এর কান্ট্রি বিজনেস ম্যানেজার  জিয়া মঞ্জুর, মাইক্রোসফট প্রতিনিধি মিস্টার পুবুদো বাসনায়েকে।

ওয়ালটনের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গাজীপুরের চন্দ্রায় ওয়ালটন কারখানা কমপ্লেক্সে বর্তমানে ল্যাপটপের যন্ত্রপাতি স্থাপন করা হচ্ছে। মাইক্রোসফটের আসল উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম ও অ্যাপ্লিকেশন সফটওয়্যার থাকায় কোনো ধরনের অ্যান্টিভাইরাস ছাড়াই ব্যবহার করা যাবে ওয়ালটন ল্যাপটপ। ল্যাপটপে ষষ্ঠ প্রজন্মের কোরআই ৩, ৫ ও ৭ প্রসেসর সরবরাহ করছে ইনটেল।

walton-laptop

ওয়ালটন জানিয়েছে, তাদের ল্যাপটপে ষষ্ঠ প্রজম্মের কোরআই-৩, ৫ ও ৭ প্রসেসর সরবরাহ করছে ইনটেল। বাংলাদেশে লোকাল ব্র্যান্ড হিসেবে ওয়ালটনকেই এ ধরনের সহযোগিতা দিচ্ছে তারা। সার্বিক সহায়তা দিচ্ছে ইনটেল, যার মধ্যে রয়েছে ডিজাইন, ড্রইং, প্রশিক্ষণ, বিপণন, আর্থিক ইত্যাদি। ব্যবহৃত হবে ইনটেলের লোগো। অন্যদিকে মাইক্রোসফট দিচ্ছে প্রধানত সফটওয়্যার সহযোগিতা। থাকছে প্রশিক্ষণ এবং বিপণন কৌশলগত সহায়তাও। মাইক্রোসফটের জেনুইন অপারেটিং সিস্টেম উইন্ডোজ ও এ্যাপ্লিকেশন সফটওয়্যার থাকায় কোনো ধরনের এন্টিভাইরাস ছাড়াই ব্যবহার করা যাবে ওয়ালটন ল্যাপটপ। বর্তমান বাজারমূল্যের প্রায় অর্ধেক দামে মাইক্রোসফটের জেনুইন অপারেটিং সিস্টেম ও সফটও্যয়ার বাজারজাত করবে ওয়ালটন।

ওয়ালটন ল্যাপটপের মান সম্পর্কে জানতে চাইলে ওয়ালটন গ্রুপের ডিরেক্টর এস এম রেজাউল আলম শামীম বলেন, ‘আমি এ বিষয়ে আপনাদের নিশ্চিত করতে চাই- মান নিয়ে আমরা আপোষ করিনি। আন্তর্জাতিক মান বজায় রেখেই তৈরি হচ্ছে ওয়ালটন ল্যাপটপ।’ তিনি জানান, বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো কম্পিউটার হার্ডওয়্যার উৎপাদনেও যাচ্ছে ওয়ালটন। তৈরি হবে বিশ্বের লেটেস্ট প্রযুক্তির ইলেকট্রনিক্স মাদারবোর্ড। ইউরোপ থেকে আনা হয়েছে মাদারবোর্ড কারখানার প্রযুক্তি। গাজীপুরের চন্দ্রায় ওয়ালটন কারখানা কমপ্লেক্সে বিশাল পরিসরে চলছে মেশিনারিজ ইনস্টলেশন। এর আগে জাপান থেকে এসেছে এসএমটি (সারফেস মাউন্টিং টেকনোলজি) এবং এআই (অটো ইনসারশন) টেকনোলজি। যা এখন উৎপাদনে আছে।

walton-laptop

প্রাথমিকভাবে ওয়্যাক্স জাম্বো, কেরোন্ডা, ট্যামারিন্ড ও প্যাশন- এই চার সিরিজের মোট ২০ মডেলের ল্যাপটপ বাজারে ছাড়বে ওয়ালটন। দাম পড়বে ২৯ হাজার ৫০০ থেকে শুরু করে ৯৫ হাজার ৫০০ টাকা পর্যন্ত। এসব ল্যাপটপ ক্রেতারা ১২ মাসের কিস্তি সুবিধাতেও কিনতে পারবেন। ল্যাপটপে শর্তসাপেক্ষে এক বছরের জন্য বিনা মূল্যে বিক্রয়োত্তর সেবাও দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ওয়ালটন ল্যাপটপে রয়েছে বিশ্বের লেটেস্ট প্রযুক্তির ইলেকট্রনিক্স মাদারবোর্ড। ইউরোপ থেকে আনা হয়েছে মাদারবোর্ড কারখানার প্রযুক্তি। ওয়ালটন কারখানায় মাদারবোর্ডের মতো উচ্চপ্রযুক্তির হার্ডওয়্যার দেশেই তৈরি করার প্রক্রিয়া বাস্তবায়নাধীন আছে। এক পার্যায়ে দেশেই তৈরি হবে পূর্নাঙ্গ ল্যাপটপ। তখন অন্যান্য ব্র্যান্ডের তুলনায় দাম চলে আসবে অর্ধেকে।

ওয়ালটনের উন্নয়ন ও গবেষণা (কম্পিউটার) বিভাগের বাংলাদেশ ও তাইওয়ান শাখার প্রকৌশলীরা দীর্ঘদিনের চেষ্টায় ইউজার-ফ্রেন্ডলি ল্যাপটপের ডিজাইন করেছেন। এতে ব্যবহার করা হয়েছে অত্যাধুনিক সব ফিচার। চারটি সিরিজের মধ্যে প্রাথমিক পর্যায়ে থাকছে ওয়্যাক্স জাম্বু’র ১৭.৩ ইঞ্চি ডিসপ্লের ১টি মডেল, কেরোন্ডা’র ১৫.৬ ইঞ্চি ডিসপ্লের একটি মডেল, প্যাশন-এর ১৪ ইঞ্চি ডিসপ্লের তিনটি মডেল ও ১৫ ইঞ্চি ডিসপ্লের ৬টি মডেল, টেমারিন্ড-এর ১৪-ইঞ্চি ডিসপ্লের ৬টি মডেল ও ১৫-ইঞ্চি ডিসপ্লের ৩টি মডেল।

ওয়ালটন গ্রুপের কম্পিউটার আরএন্ডডি বিভাগের সিনিয়র এ্যাসিস্ট্যান্ট জেনারেল ম্যানেজার প্রকৌশলী রাজীব হাসান রাজু বলেন, ওয়্যাক্স জাম্বু ও কেরোন্ডা সিরিজের বিশেষ ফিচার হচ্ছে ৬ষ্ঠ প্রজম্মের ইন্টেল কোর আই-৭ প্রসেসর, ৮ জিবি ডিডিআরফোর আল্ট্রা গতির র‌্যাম ও ১ টেরাবাইট হার্ডডিস্ক মেমোরি। যার মাধ্যমে দ্রুত গতিতে কাজ করা সম্ভব।

ওয়ালটন কারখানায় তৈরি হবে ল্যাপটপ ও ডেস্কটপ কম্পিউটার, মোবাইল ফোন, উচ্চমানের এলইডি টিভি ছাড়াও প্রায় সব ধরনের কম্পিউটার সামগ্রী। ওয়ালটন জানিয়েছে, ‘সময় এখন বাংলাদেশের’ এই স্লোগান নিয়ে বিপণন কৌশল সাজিয়েছে ওয়ালটন। প্রাথমিকভাবে ষষ্ঠ প্রজন্মের প্রসেসরসমৃদ্ধ ওয়্যাক্স জাম্বু, কেরোন্ডা, টেমারিন্ড ও প্যাশন- এই চার সিরিজের মোট ২০টি মডেলের ল্যাপটপ বাজারে ছাড়ছে তারা। দাম থাকছে ২৯,৫০০ টাকা থেকে শুরু করে ৯৫,৫০০ টাকা পর্যন্ত। ক্রেতাদের জন্য থাকবে সহজ শর্তে ১২ মাসের কিস্তিতে ল্যাপটপ কেনার সুবিধা। শর্তসাপেক্ষে থাকছে একবছরের ফ্রি বিক্রয়োত্তর সেবা।

SHARE

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY